Breaking News
Home >> Breaking News >> চাকদহে এক তরুণীর মৃতদেহ উদ্ধারকে ঘিরে ব্যাপক চাঞ্চল্য

চাকদহে এক তরুণীর মৃতদেহ উদ্ধারকে ঘিরে ব্যাপক চাঞ্চল্য

স্টিং নিউজ সার্ভিস, চাকদহ, নদিয়াঃ শুক্রবার সকালে নদীয়ার চাকদহ থানার শিমুরালির  যাত্রাপুরের কাছে একটি চাষের জমির মধ্যে থেকে এক তরুণীর মৃতদেহ উদ্ধার ঘিরে ব্যাপক চাঞ্চল্য দেখা দিল l মৃতের  পরিবারের অভিযোগ ও সন্দেহ, তাদের মেয়েকে শ্বাসরোধ করে খুন করা হয়েছে  l পুলিশের কাছে ওই তরুনীর বাবা তার জামাইয়ের বিরুদ্ধে খুনের অভিযোগ দায়ের করেছেন l যদিও শুক্রবার সন্ধ্যা অবধি পুলিশ অভিযুক্তকে গ্রেফতার করতে পারেনি l

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, মৃতের নাম  শবনুর মন্ডল ( ১৭ ) । তার বাড়ি গাংনাপুর থানার মাঝেরগ্রাম গ্রাম পঞ্চায়েতের রামেশ্বরপুর গ্রামে l দশম শ্রেণী অবধি  পড়াশোনা করে ইদানিং পড়া ছেড়ে দিয়েছিলেন শবনুর l শবনূররা দুই বোন l  বড় বোন শাবানার বারো বছর আগে বিয়ে হয়েছিল ধানতলা থানার চাঁদিপুর গ্রামের আজিবর মণ্ডলের সঙ্গে l তাদের একটি সন্তান রয়েছে l যদিও বেশ কিছুদিন ধরেই শ্যালিকা  শবনূরের  দিকে নজর পড়েছিল আজিবর মন্ডলের l শ্যালিকার সঙ্গে সে বেশ ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক পাতিয়ে ফেলেছিল l যদিও শ্যালিকার সঙ্গে বিবাহ-বহির্ভূত সম্পর্কের কথা সামনে আসে ঊনত্রিশ দিন আগে শালিকাকে নিয়ে আজিবরের নিখোঁজ হয়ে যাওয়ার পর l

পুলিশকে শবনূরের  পরিবারের লোকজন জানিয়েছেন, ‘ গত আট  জানুয়ারি দিদির বাড়ি ধানতলা থানার চাঁদিপুর গ্রামে যাওয়ার নাম করে, জামাইবাবুর সঙ্গে বাড়ি থেকে বেরিয়েছিল শবনুর l অথচ আদৌ জামাইবাবুকে নিয়ে সে দিদির বাড়িতে যায়নি l জামাইবাবুর সঙ্গে প্রায় উনত্রিশ  দিন ধরে নিখোঁজ ছিলেন শবনুর l ‘তার বাড়ির লোকজন পুলিশের কাছে একটি নিখোঁজ ডায়েরিও করেছিলেন l যদিও এতদিন ধরে জামাইবাবুর সঙ্গে শবনূর কোথায় ছিল, তা স্পষ্ট করে জানতে পারেননি তার বাড়ির লোকজন l তবে শুক্রবার ভোররাতে স্ত্রী শাবানা মন্ডলকে ফোন করেছিলেন আজিবর মন্ডল l

পুলিশের কাছে শাবানা মন্ডল জানিয়েছেন, ‘ ফোনে আমার স্বামী বলেছেন, আমি একটা অন্যায় করে ফেলেছি l তোমার বোনের মৃতদেহ পড়ে আছে মাঠের মধ্যে l তুমি ঠিকানাটা লিখে নাও l ঠিকানা লিখে নেওয়ার পর আর বিস্তারিত জানতে পারিনি শাবানা মন্ডল l ফোন কেটে দেয় তার স্বামী l এরপর বারবার তাকে ফোন করা হলেও তার ফোন সুইচড অফ পাওয়া যায় l

শাবানা বলেন, যদিও আত্মীয়-স্বজনকে নিয়ে আমরা চাকদহের শিমুরালি যাত্রাপুরের মাঠে গিয়ে আমার বোনের মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখতে পাই l  কীভাবে মৃত্যু হল আমার বোনের,  তা আমরা জানতে পারিনি l ‘ পুলিশ জানিয়েছে, মৃতের  বাবা আনোয়ার মণ্ডল তার জামাই আজিবর মণ্ডলের বিরুদ্ধে খুনের  লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন l সেই অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত শুরু করা হয়েছে l তবে এখনো কাউকে গ্রেপ্তার করা যায়নি l  

এছাড়াও চেক করুন

ব্রাউন সুগার পাচারের অভিযোগে দুই কলেজ পড়ুয়াকে গ্রেফতার করল ইংরেজবাজার থানার পুলিশ

মালদাঃ বেআইনি ব্রাউন সুগার পাচারের অভিযোগে দুই কলেজ পড়ুয়াকে গ্রেফতার করল ইংরেজবাজার থানার পুলিশ। তাদের …

Leave a Reply

Your email address will not be published.