Breaking News
Home >> Breaking News >> মন্দিরে চুরির ঘটনায় ধৃত যুবকের পুলিশ হেফাজত

মন্দিরে চুরির ঘটনায় ধৃত যুবকের পুলিশ হেফাজত

স্টিং নিউজ সার্ভিস, নবদ্বীপ, নদিয়া: নবদ্বীপের একটি প্রাচীন মন্দিরে চুরির ঘটনায় ধৃত যুবকের পুলিশ হেফাজতের নির্দেশ দিল নবদ্বীপ আদালতের বিচারক। পুলিশ জানায়, ওই যুবকের নাম পল্লব মুখার্জী। বাড়ী নবদ্বীপ পৌরসভার ২ নম্বর ওয়ার্ডের মুসলমান পাড়ায়। রবিবার গোপন সূত্রে খবর পেয়ে ওই যুবক কে গ্রেপ্তার করে নবদ্বীপ থানার পুলিশ। পাশাপাশি তার কাছ থেকে উদ্ধার হয়, মন্দির থেকে চুরি যাওয়া বেশকিছু মূল্যবান জিনিস।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, নবদ্বীপ শহরের মালঞ্চপাড়া রোডে ওলাদেবী মাতা নামে একটি প্রাচীন মন্দির আছে। সেই মন্দিরটির বয়স প্রায় চারশো বছরেরও অধিক বলে জানান স্থানীয়রা। সম্প্রতি ওই মন্দিরে চুরি যায় সোনার অলঙ্কার সহ বেশকিছু মূল্যবান জিনিস। চুরির ঘটনায় মন্দিরের সেবায়েত মদন মোহন গোস্বামী নবদ্বীপ থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগ পেয়ে তদন্তে নামে থানার পুলিশ। সেই চুরির চারদিন যেতে না যেতেই ফের চুরির চেষ্টা চালায় দুষ্কৃতীরা।

যদিও আগের মতো সফল হতে পারেনি চোরেরা। সেই সময় পিকনিক করে বাড়ি ফিরছিল এলাকার বেশকিছু যুবক। ওই যুবকদের বিষয়টি নজরে পড়লে তারা মন্দিরের দিকে এগিয়ে যায়। যুবকদের মন্দিরের সামনে আসতে দেখে সেখান থেকে পগারপার দেয় দুষ্কৃতীরা। চুরির পর ফের একই মন্দিরে চুরির চেষ্টার ঘটনায়, শহর জুড়ে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পরে।

এরপর নড়েচড়ে বসে পুলিশ প্রশাসন। তদন্তে নেমে রবিবার রাতে নবদ্বীপ পৌরসভার ২ নম্বর ওয়ার্ডের মুসলমান পাড়ার বাসিন্দা পল্লব মুখার্জীকে গ্রেপ্তার করে নবদ্বীপ থানার পুলিশ। পাশাপাশি তার বাড়ী থেকে উদ্ধার হয় চুরি যাওয়া বেশকিছু সোনার টিপ সহ অন্যান্য মূল্যবান জিনিস। কিন্তু হদিস মেলেনি চুরি যাওয়া প্রাচীন শিবলিঙ্গের। যার বর্তমান বাজার মূল্য প্রায় কয়েক লক্ষেরও বেশি। খোয়া যাওয়া শিবলিঙ্গটি উদ্ধারের জন্য, আদালতের কাছে পাঁচ দিনের পুলিশ হেফাজত চাওয়া হলে, আদালত তিনদিনের মঞ্জুর করে।

পুলিশ জানায়, হেফাজত পাওয়া ধৃত যুবক কে জিজ্ঞাসাবাদ চালিয়ে শিবলিঙ্গের উদ্ধারের চেষ্টা চালান হবে। স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানতে পারা যায়, নবদ্বীপ শহরের মালঞ্চপাড়া রোডের উপর একটি চারশ বছরের প্রাচীন মন্দির আছে। যাকে শহরবাসী ওলাদেবী মাতার মন্দির হিসাবেই জানে। গত ৪ জানুয়ারি গভীর রাতে ওই মন্দিরে মায়ের অলঙ্কার সহ বেশকিছু মূল্যবান জিনিস চুরি যায়। তার মধ্যে সাড়ে চারশো বছরের প্রাচীন শিবলিঙ্গটি ছিল।

ওলাদেবী মন্দিরের প্রধান সেবায়েত মদনমোহন গোস্বামী জানান, গত ৪ জানুয়ারি রাতে চোরেরা মায়ের সোনার টিপ ও শিবলিঙ্গ সহ একাধিক জিনিস নিয়ে পালিয়ে যায়। সেই চুরির চারদিন যেতে না যেতেই আবারও চুরির চেষ্টা চালায় চোরেরা। সেবায়েত জানান, মায়ের এই মন্দিরটি প্রায় চারশ বছরের প্রাচীন। এই মন্দিরে মায়ের পাশাপাশি আছে একটি প্রাচীন শিবলিঙ্গ। হয়তো চোরেরা সেটা নিতেই আবারও চারদিনের মাথায় হানা দিয়েছিল। চোর কে ধরা পড়ায় সেবায়েত সহ খুশি এলাকার বাসিন্দারাও।

উল্লেখ্য, সাম্প্রতিকালে নবদ্বীপের মতো তীর্থ নগরীর বেশকিছু প্রাচীন মন্দিরে চুরির মতো ঘটনা ঘটেছে। পোড়ামাতলার ভবতারিনী মন্দির এবং সমাজবাড়ী সহ বেশকিছু মন্দিরে দুঃসাহসিক চুরি হয়। তদন্ত চালিয়ে একটি মাত্র চুরির কিনারা করতে পারলেও বাকি মন্দিরগুলির একটিও কিনারা করতে পারেনি পুলিশ। শেষ পর্যন্ত ওলাদেবী মন্দিরে চুরির ঘটনায় দ্রুত চোর ধরা পড়া এবং চুরি হওয়া জিনিসের কিছুটা উদ্ধার হওয়ায়, অনেকটাই স্বস্তিতে শহরবাসী।

এছাড়াও চেক করুন

মদ্যপ অবস্থায় ড্রাইভিং না করার পরামর্শ দেন পুলিশ সুপার কোটেশ্বর রাও

নরেশ ভকত, স্টিং নিউজ করেসপনডেন্ট, বাঁকুড়া: কমবয়সী যুবকদের মদ্যপ অবস্থায় মোটর বাইক চালানোর প্রবনতা বেড়ে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.