Breaking News
Home >> Breaking News >> দুর্নীতি মামলায় বাংলাদেশের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার সাত বছরের জেল

দুর্নীতি মামলায় বাংলাদেশের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার সাত বছরের জেল

স্টিং নিউজ সার্ভিসঃ জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াসহ সব আসামির ৭ বছর করে সশ্রম কারাদণ্ড ও প্রত্যেককে ১০ লাখ টাকা জরিমানা করেছেন আদালত। জরিমানা অনাদায়ে আরো ৬ মাসের জেল। সেই সঙ্গে জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্টের নামে কাকরাইলে থাকা জমি রাষ্ট্রের অনুকুলে বাজেয়াপ্ত করার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

আজ সোমবার দুপুরে নাজিম উদ্দিন রোডের কেন্দ্রীয় কারাগারের মধ্যে বসানো আদালতে এই রায় ঘোষণা করেন বিচারক মো. আখতারুজ্জামান।

জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্টের মামলায় খালেদা জিয়া ছাড়া অন্য তিনজন আসামি হলেন- খালেদা জিয়ার তৎকালীন রাজনৈতিক সচিব হারিছ চৌধুরী, হারিছ চৌধুরীর তৎকালীন একান্ত সচিব জিয়াউল ইসলাম মুন্না ও ঢাকা সাবেক মেয়র সাদেক হোসেন খোকার একান্ত সচিব মনিরুল ইসলাম খান।

২০১১ সালের ৮ আগস্ট জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্টের তিন কোটি ১৫ লাখ ৪৩ হাজার টাকা আত্মসাতের অভিযোগে খালেদা জিয়াসহ চারজনের বিরুদ্ধে দায়ের করে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। সে ‍অনুযায়ী ওই মামলায় ২০১২ সালের ১৬ জানুয়ারি আদালতে চার্জশিট দাখিল করা হয়।

এর আগে খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে দায়ের করা জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় তাকে ৫ বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়। (সৌজন্যেঃ বিডি-প্রতিদিন)

এছাড়াও চেক করুন

মেদিনীপুরের ভগবানপুরে বিদ্যুতের ভোল্টেজ কম, তার জেরে পানীয় জলের সংকট

স্টিং নিউজ সার্ভিসঃ বিদ্যুতের ভোল্টেজ কম। তার জেরে তৈরী হয়েছে পানীয় জলের সংকট। প্রশাসনকে বারবার …

Leave a Reply

Your email address will not be published.