Breaking News
Home >> Breaking News >> স্কুল ঘর থেকে উদ্ধার বোমা তৈরির সরঞ্জাম, উদ্বেগ দিনহাটায়

স্কুল ঘর থেকে উদ্ধার বোমা তৈরির সরঞ্জাম, উদ্বেগ দিনহাটায়


মনিরুল হক, কোচবিহারঃ স্কুল ঘরের ভিতর থেকে উদ্ধার হল বেশ কিছু বোমা ও বোমা তৈরির সরঞ্জাম। আজ সকালে দিনহাটা ২ নম্বর ব্লকের বামনহাট হাইস্কুলে ওই বোমা ও বোমা তৈরির সরঞ্জাম স্থানীয় কিছু ছাত্রছাত্রীর নজরে আসে। ঘটনাটি স্কুল কর্তৃপক্ষকে জানানো হলে তারা পুলিশকে খবর দেন। খবর পেয়ে সাহেবগঞ্জ থানার পুলিশ এসে ওই বোমা ও বোমা তৈরির সরঞ্জাম উদ্ধার করে নিয়ে যান। এভাবে স্কুল ঘর থেকে বোমা তৈরির সরঞ্জাম উদ্ধার হওয়ার ঘটনায় ছাত্রছাত্রী, শিক্ষা কর্মী ও স্থানীয় বাসিন্দাদের মধ্যে ব্যাপক উদ্বেগ তৈরি হয়েছে। দিনহাটা মহকুমা পুলিশ আধিকারিক উমেশ গণপত বলেন, “ ওই ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে। আমি নিজে সেখানে যাচ্ছি।”
বামনহাট হাইস্কুলের সহকারী প্রধান শিক্ষক দীলিপ কর্মকার জানান, স্কুলের ঘর হলেও ওই ঘরটি একটু দূরে হওয়ায় ক্লাস নেওয়ার কাজে ব্যবহার করা হয় না। স্থানীয় কিছু বেকার যুবক সেখানে প্রাইভেট টিউশন পড়ানোর কাজ করেন। এদিন সকালে প্রাইভেট টিউশন পড়তে আসা ছাত্রছাত্রীরা ঘর খুলতে এসে দেখতে দরজার একাংশ ভাঙ্গা অবস্থায় রয়েছে। তালা খুলে ভিতরে যেতেই বোমা তৈরির বারুদ, সুতলি সহ অন্যান্য সরঞ্জাম, ব্যাগ ও মদের বোতল দেখতে পায়। এরপরেই তারা ফোনে পুরো ঘটনা স্কুল কর্তৃপক্ষকে জানায়। স্কুল কর্তৃপক্ষের ধারনা, গতকাল সকালেও সেখানে প্রাইভেট টিউশন পড়ানোর কাজ হয়েছে। তাই গত রাতেই ওই ঘটনা ঘটিয়েছে দুষ্কৃতিরা। প্রধান শিক্ষক বলেন, “আমরা উদ্বিগ্ন কারণ সেখানে স্কুলের ছাত্রছাত্রীদের যাতায়াত রয়েছে। একটা অঘটন ঘটে গেলে আমাদের আর কিচ্ছু করার থাকবে না। শিক্ষাঙ্গন যাতে অপরাধ মুক্ত থাকে, আমি সেই প্রার্থনাই করবো।”
পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগে থেকে দিনহাটা জুড়ে তৃণমূল কংগ্রেসের দুই গোষ্ঠী মাদার ও যুব’র বিরোধ চরমে ওঠে। দুই পক্ষের মধ্যে একাধিক সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এক তৃণমূল পঞ্চায়েত সদস্যের মৃত্যু পর্যন্ত হয়। নির্বাচন পরবর্তীতে গ্রাম পঞ্চায়েতের বোর্ড দখল করার আগাম প্রস্তুতি নিয়েও ওই দুই পক্ষের মধ্যে বিরোধ জারি রয়েছে। প্রায় প্রতি রাতেই এলাকা দখল নিয়ে দুই পক্ষের বোমা গুলির শব্দে স্থানীয় বাসিন্দারা আতঙ্কের রাত্রি যাপন করে চলেছেন বলে অভিযোগ। সম্প্রতি সাহেবগঞ্জ এলাকাতেও ওই দুই পক্ষের মধ্যে একাধিক গণ্ডগোলের খবর পাওয়া গিয়েছে। পুলিশের প্রাথমিক ধারনা, ওই রাজনৈতিক লড়াইয়ের জেরেই স্কুল চত্বরে বোমা ও বোমা তৈরির সরঞ্জাম উদ্ধার হয়েছে। তৃণমূল কংগ্রেসের দিনহাটা ২ নম্বর ব্লক সভাপতি মীর হুমায়ূন কবীর বলেন, “এখানে কারা গুলি বোমার কারবার করছে, তা পুলিশ প্রশাসন থেকে সাধারণ মানুষ সকলেরই জানা। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বোমা তৈরির কারখান বানাতে গিয়ে ছোট ছোট ছাতছাত্রীদের ক্ষতি হতে পারে, সেই বোধ এদের নেই। এখনই যদি নিয়ন্ত্রণ করা না যায়, আগামী দিনে আরও ভয়াবহ পরিস্থিতি তৈরি হবে।”

আমাদের  STING NEWZ  ইউটিউব চ্যানেলটি সাবসক্রাইব করতে ক্লিক করুন এই লিঙ্কেঃ https://www.youtube.com/c/StingNewz7  আর প্রতি মুহূর্তে পেতে থাকুন ভিডিও খবরের তাজা আপডেট। 

এছাড়াও চেক করুন

পশ্চিম মেদিনীপুরের ঘাটালের পাঁশকুড়া বাসস্ট্যান্ডে লায়ন্স ক্লাবের ক্লক টাওয়ারের উদ্বোধনে  দেব

পশ্চিম মেদিনীপুর: পশ্চিম মেদিনীপুরের ঘাটালের পাঁশকুড়া বাসস্ট্যান্ডে লায়ন্স ক্লাবের ক্লক টাওয়ারের উদ্বোধন করতে এসে সাংসদ …

Leave a Reply

Your email address will not be published.