Breaking News
Home >> Breaking News >> ৪৭৬ নম্বর পেয়ে নদিয়ার আকাশের সম্ভাব্য র‍্যাঙ্ক রাজ্যে ১৫ তম 

৪৭৬ নম্বর পেয়ে নদিয়ার আকাশের সম্ভাব্য র‍্যাঙ্ক রাজ্যে ১৫ তম 

শুভায়ুর রহমান, তেহট্ট: আর  সামান্য নম্বর পেলেই প্রথম দশের তালিকায় চলে আসত ছেলেটি।তবুও যা নম্বর পেয়েছে তাতেই বাজিমাত করেছে নদিয়ার তেহট্টের বালিউড়া গ্রামের আকাশ আহমেদ। তার প্রাপ্ত নম্বর ৪৭৬। সে নদিয়া জেলায় মুসলিম ছেলে মেয়েদের সম্ভাব্য প্রথম স্থান অর্জন করেছে।এবং রাজ্যের মধ্যে তার সম্ভাব্য র‍্যাঙ্ক ১৫ তম।আকাশ আহমেদের বিষয় ভিত্তিক প্রাপ্ত নম্বর বাংলা-৮০,ইংরেজি -৯৫,কেমিস্ট্রি -৯৯,ফিজিক্স -৯০,ম্যাথম্যাটিকস -৯৮ ও বায়োসায়েন্সে -৯৪ নম্বর পেয়েছে।আকাশ আহমেদ তেহট্ট হাইস্কুল থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা দিয়েছিল।

আকাশ আহমেদের বাবা আকবর আলি সেখ হাতিশালা হাইস্কুলের প্রাক্তন প্রধান শিক্ষক।মা সিরিন বানু গৃহবধূ। আকাশরা তিন ভাইবোন। সে সবার ছোট।বড় বোন  স্বাতী সুলতানা সিবিএসই বোর্ডের একটি প্রাইমারি স্কুলের শিক্ষিকা। ও ছোট বোন রিয়া সুলতানা জেবি রায় আয়ুর্বেদিক হাসপাতাল ও কলেজের মেডিকেল ছাত্রী বলে পরিবারের তরফে  জানানো হয়েছে।আকাশ আহমেদের বাবা আকবর আলি সেখ বলেন” ছেলে ভাল ফল করেছে সবাই খুশি।বাড়িতে পড়াশুনোর পরিবেশ ছিল সেটা ও কাজে লাগিয়েছে।কিন্তু প্রথম দশের মধ্যে আসতে পারলে ভাল লাগতো। “তার ভাল ফল সম্পর্কে আকাশ জানায়”স্যররা সাহায্য করেছেন। নিজেও খুব খেটে ছিলাম।পরের ধাপ এগোতে হবে।এবার লক্ষ্য জেলা ফিজিসিয়ান হওয়া।দেখা যাক কি হয়।আমার এই ফল প্রত্যাশিত ছিল। ভাল নম্বর পাবো জানতাম তবে এতটা পাবো ভাবিনি। “

loading...

এছাড়াও চেক করুন

উদ্ধার তুফানগঞ্জের গদাধর নদীতে তলিয়ে যাওয়া দুই ছাত্রের দেহ

মনিরুল হক, কোচবিহারঃ তুফানগঞ্জে নদীতে তলিয়ে যাওয়া দুই স্কুল ছাত্রের দেহ ভেসে উঠল আজ সকালে। …

Leave a Reply

Your email address will not be published.