Breaking News
Home >> Breaking News >> ফের অপরাধের মুক্তস্থল উত্তর ২৪ পরগণার বামনগাছি

ফের অপরাধের মুক্তস্থল উত্তর ২৪ পরগণার বামনগাছি

মনি ভট্টাচার্য্য  : কোলাহলময় স্টেশন চত্বর,ডাউন এক নম্বর থেকে নেমে সোজা চলে গেলে দেখা যাবে জরাজীর্ন কয়েকটি ভ্যান দাঁড়িয়ে আছে,
“ও দাদা, বামনপাড়া যাবেন?” পাত্তা না দিয়ে সোজা মিনিট পাঁচেক হাঁটার পর বা দিকের মোড়ে ঘুরতেই দৃশ্যটা ঠিক অন্য রকম,জনহীন,পথের মাঝে ছোট ছোট গর্ত পথটিকে একটি অন্য রূপ দিয়েছে,হ্যাঁ এটাই বামনগাছি,বামনপাড়া। সকালে বেশ যাতায়াত থাকলেও সন্ধ্যে হলেই কমতে থাকে যাতায়াত,অন্ধকার,ঘিঞ্চি পরিবেশ,রাস্তার দুদিকে বাড়ি,কেউ বিনা প্রয়োজনে বেরোন না বাড়ি থেকে। ” ভুতের ভয়?? “,না! অপরাধের ভয়,সন্ত্রাসের ভয়,সম্মানের ভয়।
প্রশাসনের কড়া পাহারায় তা আবার হয় নাকি?? হ্যা,লাম্প পোস্ট আছে,কিন্তু আলো নেই,কখনো রাত বাড়লেই রাস্তায় হাঁটা দুস্কর হয় মহিলা দের,চলন্ত বাইক থেকে কারোর হাত ধরে টানা,কারোর ওড়না ধরে টানা এখানকার নতুন কিছু নয়। একটু এগোলেই যে যশোহর রোড,রাস্তার পাশেই জঙ্গল,দেদারে সেখানে বসে চলে মদ্য পান,আফিম,গাঁজা,আবার কখনো কোনো মেয়েকে নিয়ে জঙ্গলে ঢুকছে দুঃস্কৃতিরা। কখনো দরজার তালা ভেঙে চুরি,আবার কখনো পাইপ বেয়ে উঠে চুরি। সব জেনে এবং দেখে ভীত সন্ত্রস্ত উত্তর চব্বিশ পরগনা জেলার বামনগাছি বামনপাড়ার বাসিন্দারা। তাদের দাবি বহুবার বহুজনকে জানানো হয়েছে ঘটনা গুলো। প্রশাসন সহ পঞ্চায়েত সদস্যকেও জানানো হয়েছিল। কিন্তু তারা বরাবরের মত প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। এতে তাদের ভ্রূকুটি অবধি নড়ে নি। হাতে গোনা আশিটির বেশি পরিবার, এদের মধ্যে বয়স্কদের সংখ্যা ও যুবতীদের সংখ্যা নেহাত কম নয়।  আবার পাশে স্কুল,ঐ রাস্তাতেই যাতায়াত স্কুল ছাত্রীদের।
বামনপাড়া এলাকার বাসিন্দা কৌশিক মুখার্জী বলেন “রাতে কোনো বিপদ হলে পাওয়া যায় না সদস্য কে,পঞ্চায়েত সদস্যের পাড়ার উন্নতির কোনো বালাই নেই।”  নির্মম দুঃসাহসিকতার শিকার অনুশিলা দেবী বিবৃতি দেন, ” ঠিক মতো পাওয়া যায় না প্রশাসন কে,তবে এ পরিষেবা রেখে লাভ কি? রাস্তায় হাঁটাচলা করি নিজের জীবন হাতে নিয়ে”।  এ যেন সন্ত্রাসের স্বর্গপুরী,তাদের কাছে দিন বদল এটা নয়,বদলেছে আবির খেলার রং,বদলেছে জয়ের রং,কিন্তু বদলায়নি সন্ত্রাস। তাদের দাবি বহুবার জানিয়েও মেলেনি নাইট গার্ড ব্যাবস্থা। এখন কথা হলো সদ্য শেষ হওয়া পঞ্চায়েত ভোট,এবং শাসক দল এই নির্মমতার কোনো সুরাহা করবে কিনা এই নিয়ে সংশয় ,এমনকি বামনপাড়া বাসিন্দারা যে পরবর্তী সৌরভ চৌধুরী বা তাপসী মালী কে দেখবে না এটাই বা কে বলতে পারে?

loading...

এছাড়াও চেক করুন

বর্ষার প্রথম বৃষ্টিতে ভাসল কোচবিহার, ঘরে জল ঢুকে ভোগান্তি

মনিরুল হক, কোচবিহারঃ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় বন্ধুর বাড়িতে বিশ্বকাপ ফুটবল দেখতে গিয়েছিলেন কোচবিহার শহরের ১২ নং …

Leave a Reply

Your email address will not be published.