Breaking News
Home >> Breaking News >> ​বন্যা পরিস্থিতিতে উত্তর দিনাজপুরে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা আজ পরিদর্শন করলেন কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দল

​বন্যা পরিস্থিতিতে উত্তর দিনাজপুরে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা আজ পরিদর্শন করলেন কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দল

পিয়া  গুপ্তা , স্টিং নিউজ করেসপনডেন্ট,উত্তর দিনাজপুর: উত্তর দিনাজপুর জেলার বিভিন্ন এলাকা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে গত আগস্টে বন্যা পরিস্থিতির কারণে  আজ ওই এলাকাগুলি পরিদর্শন করলেন কেন্দ্রের বিশেষ প্রতিনিধি দল। জেলাশাসক আয়েষা রানি এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন, জিও ইন্ডিয়ার জয়েন্ট সেক্রেটারি শশাঙ্ক শেখরের নেতৃত্বে একটি দল গতকাল জেলায় আসছে তারা বন্যা পরিস্থিতিতে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা পরিদর্শন করলেন আজ। জেলাশাসক বলেন, হোম ডিপার্টমেন্ট, এগ্রিকালচার সহ বিভিন্ন দপ্তরের প্রতিনিধিরা ওই দলে থাকবে। ক্ষতিগ্রস্ত রাস্তাঘাট,কৃষি ফসল, বিদ্যুৎ স্কুল, , পিএইচই ভেঙে পড়া বাড়িঘর সমস্ত কিছুই তাদের দেখানো হবে। গোটা জেলা পরিদর্শন সম্ভব না হলেও যেসমস্ত এলাকা বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে তা দেখান হবে। 

প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, দু’দিনে গৌড়বঙ্গের তিন জেলা উত্তর ও দক্ষিণ দিনাজপুর এবং মালদহের ক্ষতিগ্রস্ত এলাকাগুলি ও তাঁরা পরিদর্শন করবেন। অল্প সময়ের মধ্যে বন্যা পরিস্থিতির ক্ষয়ক্ষতির চেহারা প্রতিনিধিদলের সামনে তুলে ধরতে জেলা প্রশাসন ইতিমধ্যে কোনও কোনও এলাকার স্কুল, ভেঙে পড়া বাড়িঘর, কৃষিসহ অন্যান্য ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা পরিদর্শন করালেন জেলা শাসক সহ প্রতিনিধি দল। সম্প্রতি বন্যা পরিস্থিতির কারণে জেলার সবকটি ব্লকেই কয়েকদিন জলবন্দি ছিল। এরফলে কৃষিক্ষেত্রে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। গ্রামাঞ্চলের অধিকাংশ রাস্তাঘাট ক্ষতিগ্রস্ত। বিভিন্ন এলাকায় জাতীয় সড়কের উপর দিয়ে জল প্রভাবিত হওয়ায় একাধিক জায়গায় সড়ক ভেঙে যায়। বিভিন্ন ব্রিজের অ্যাপ্রোচ রোডের মাটি সরে যাওয়ার ফলে ব্রিজ দুর্বল হয়ে পড়ে। কার্যত সড়কে যান চলাচল বন্ধ ছিল। বিদ্যুতের পাওয়ার স্টেশনে জল ঢোকায় কয়েকটি জায়গায় বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ ছিল। স্কুলগুলির পঠনপাঠন স্থগিত ছিল। বেশকিছু ঘরবাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত রাস্তাগুলি সাময়িকভাবে মেরামত করা হলেও অনেক কাজ বাকি আছে। কৃষকরা ক্ষতিপূরণ পায়নি। জেলা প্রশাসন ক্ষয়ক্ষতির পূর্ণাঙ্গ তালিকা রাজ্যে পাঠিয়েছে। এখন কেন্দ্রের প্রতিনিধিদল পরিদর্শনে আসায়  প্রশাসন থেকে সাধারণ মানুষ সকলে আশায় বুক বাঁধছে। ওয়াকিবহাল মহলের ধারণা, এই প্রতিনিধি দলের রিপোর্টের ভিত্তিতে কেন্দ্র আর্থিক সাহায্য পাঠাতে পারে।

Check Also

অনুষ্ঠিত হল কাঁচরাপাড়া কলেজ উৎসব -২০১৮

সৌভিক সরকার: গত ২২ ও ২৩ শে ফেব্রুয়ারি কাঁচরাপাড়া কলেজে অনুষ্ঠিত হয়ে গেল কলেজ উৎসব …

Leave a Reply

Your email address will not be published.