Breaking News
Home >> Breaking News >> ​বন্যা ত্রাণ নিয়ে অসন্তোষ গ্রামবাসীদের, রাস্তার ওপর মুসুর ডাল ফেলে বিক্ষোভ আউসগ্রামে

​বন্যা ত্রাণ নিয়ে অসন্তোষ গ্রামবাসীদের, রাস্তার ওপর মুসুর ডাল ফেলে বিক্ষোভ আউসগ্রামে


ছবিঃ কুন্তল চ্যাটার্জী
অভিজিৎ ঘোষ, স্টিং নিউজ করসপনডেন্ট, আউসগ্রামঃ বন্যা ত্রাণ নিয়ে অসন্তোষ, আউসগ্রামের বাগরাই গ্রামের বাসিন্দাদের। কুনুর নদীর জলে আউসগ্রামের বিস্তীর্ণ এলাকা প্লাবিত। তার জন্য প্রশাসনের পক্ষ থেকে বেশকিছু জায়গায় ত্রাণ সামগ্রী পাঠানো হয়। সেইমত আউসগ্রাম পঞ্চায়েতে বাগরাই গ্রামের জন্য ৬বস্তা চিড়ে ও ৩টিন গুড় এবং ৭০টি ত্রিপল পাঠানো হয় গতকাল। পাশাপাশি আজকে বননবগ্রাম হাইস্কুলে গ্রামবাসীদের রান্না করে খাওনোর কথা বলা হয়। কিন্তু রান্নার সামগ্রী ঠিকমতো না পৌঁছানোয় আসন্তোষ দানা বাঁধে গ্রামবাসীদের মধ্যে। তারপর সকাল ৯টার সময় বননবগ্রাম হাইস্কুলে, ত্রাণ শিবিরের রান্নার জন্য রাখা, দু-বস্তা মুসুর ডাল গুসকরা-ইলামবাজার রোডের বাগরাই বাসস্ট্যান্ডে ফেলে বিক্ষোভ দেখায় ওই গ্রামের কয়েকশো বাসিন্দা। তাদের অভিযোগ ব্লক প্রসাশন রান্নার জন্য দু-বস্তা মুসুর ডাল স্কুলে রাখলেও, রান্নার জন্য চাল বা অনান্য সামগ্রী পাঠানো হয়নি। তখন তাদের পক্ষ থেকে ব্লক প্রশাসনের কাছে ফোনে জানতে চাওয়া হলে, ওনারা জানান বন্যার জল নেমে গেছে রান্না করার মত পরিস্থিতি নেই। তখনই উত্তেজিত জনতা ওই মুসুর ডাল রাস্তার ওপর ফেলে বিক্ষোভ দেখাতে থাকে। ওই গ্রামের বাসিন্দা মিঠু সেখ বলেন, ব্লক প্রাশসন ও বিধায়ক বলে যান আজকে রান্না হবে স্কুল বাড়িতে, কিন্তু তা করা হয়নি। আমরা ব্লকের কাছে জানতে চাইলে, ওনারা জানান জল নেমে গেছে আর রান্নার প্রয়োজন নেই। তখনই উত্তেজিত গ্রামবাসীরা পথ অবরোধ করে।আউসগ্রাম-১ বিডিও চিত্তজিৎ বসু বলেন, ব্লক প্রশাসনের তরফ থেকে এই রকম কিছু জানানো হয়নি। ব্লক প্রশাসন যদি মনে করত, তাহলে তারাই তার ব্যবস্থা করত। তার জন্য আগে থেকে গ্রামবাসীদের জানানোর প্রয়োজন ছিল না। আর ওখানে মুসুর ডাল আপতকালীন ব্যবস্থায়, রান্নার জন্য মজুত রাখা হয়েছিল। 

Check Also

মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী আত্মঘাতী  

কমল দত্ত,নদিয়া: নদীয়ার চাকদা থানার চুয়াডাংগা নেউলিয়ায় এক স্কুল ছাত্রীর বিষ খেয়ে আত্মঘাতী হওয়ার ঘটনায় …

Leave a Reply

Your email address will not be published.