Breaking News
Home >> Breaking News >> ড্রেনের দূষিত জলে থই থই জরুরি বিভাগ বিতর্কে, মুখ্যমন্ত্রীর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতাল

ড্রেনের দূষিত জলে থই থই জরুরি বিভাগ বিতর্কে, মুখ্যমন্ত্রীর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতাল

 


বার বার বিতর্কের মুখোমুখি হচ্ছে রায়গঞ্জ সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে। 

কখনো বাথরুমে চাঙর ভেঙে রোগীর আহত হওয়া, কখনো ওটির লাইট ভেঙে যাওয়া, কখনো হাসপাতালের অপরিষ্কার ।বার বার বিতর্কের মুখোমুখি আসছে উত্তর দিনাজপুরে অবস্থিত রায়গঞ্জ সুপার স্পেশালিটি হাসপাতাল।কয়েক মাস আগে নির্মিত হয়েছিল ঝা চকচকে নয তালা বিশিষ্ট সুপার স্পেশালিটি হাসপাতাল।কিন্তু বারবার সামনে পরিকাঠামোর অভাব।


পাঁচদিন আগে ভেঙে ছিল ওটির লাইট। আর এবার ড্রেনের দূষিত জলে থৈ থৈ জরুরী বিভাগ। মঙ্গল বার 1 টা থেকে এই সমস্যা শুরু হয়েছে।বার বার করে তা ঠিক করেও সামলে উঠতে পারছে না হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। বাধ্য হয়ে জরুরী বিভাগের চিকিৎসকদের বসার জায়গা পরিবর্তন করা হয়েছে। নোংরা জল পার করেই রোগীরা হাসপাতাল থেকে ঢুকতে বেরোতে বাধ্য হচ্ছেন।মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রীর স্বপ্নের  সুপার স্পেশালিটি হাসপাতাল উদ্বোধনের পর থেকেই কখনো জরুরী বিভাগের সামনের দেওয়াল ভেঙে যাওয়া, কখনো সিলিং খসে পরা, কখনো বাথরুমে চাঙর ভেঙে রোগীর আহত হওয়া, কখনো ওটির লাইট ভেঙে যাওয়া, তো কখনো জরুরী বিভাগ দূষিত জলে থৈ থৈ করা এই সব সমস্যার মুখোমুখি পড়ছে ।সব মিলিয়ে প্রশ্ন উঠছে সরকারী এত টাকা খরচ করে সাধারণ মানুষের জন্য যে এত বড় হাসপাতাল তৈরী করছে  তা কেন বার বার এরকম বেহাল অবস্থার সম্মুখীন হচ্ছে? দেখভালের দ্বায়িত্বে যারা ছিলেন তারা কি গাফিলতির বিষয়ে ওঠ প্রশ্নের উত্তর দেবেন? প্রশ্ন অনেক উঠলেও জবাব দেবার কাউকে পাওয়া যাচ্ছেনা।হাসপাতাল সুপার ডাঃ গৌতম মন্ডল দৃশ্যতই বিরক্তি প্রকাশ করেছেন নির্মানকারী সংস্থার বিরুদ্ধে।

Check Also

জ্বলন্ত গৃহবধূ ছুটলেন রাস্তা দিয়ে 

দীপঙ্কর ভৌমিক,বারাসাত: শ্বশুরবাড়ির অত্যাচারে  জ্বলন্ত গৃহবধূ ছুটলেন প্রকাশ্য  রাস্তা দিয়ে থানার উদ্দেশ্যে। নাম সোমা সিকদার, …

Leave a Reply

Your email address will not be published.