Breaking News
Home >> Breaking News >> তিন বছর পর আবার শিক্ষকের বিরুদ্ধে শ্লীলতাহানির একই অভিযোগ

তিন বছর পর আবার শিক্ষকের বিরুদ্ধে শ্লীলতাহানির একই অভিযোগ


পিয়া গুপ্তা উত্তর দিনাজপুর: তিন বছর পর আবার একই অভিযোগ শিক্ষক এর বিরুদ্ধে ।

২০১৪ সালে অভিযুক্ত শিক্ষক  সুরজিৎ ঘোষ কালিয়াগঞ্জের পুর এলাকার মিলন ময়ি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে থাকা কালিন তার বিরুদ্ধে সেই সময় স্কুলের ছাত্রীদের সাথী অশ্লীন আচারনের অভিযোগ উঠেছিল। সেই সময় অভিভাবকদের বিক্ষোভের জেরে তাকে সেই বিদ্যালয় থেকে স্থানান্তর করে ডালিমগা নিম্ন বুনিয়াদি বিদ্যালয়ের শিক্ষকতায় যোগ দেন। আবারো শিক্ষক  সুরজিৎ ঘোষের বিরুদ্ধে তাবার ৩ বছর পড়ে স্কুলের ছাত্রীদের সাথে আশ্লীল আচারনের অভিযোগ উঠেছে। 

উল্লেখ্য কলকাতার জিডি বিডলা বেসরকারি স্কুলের পর এবারে আবার উত্তর দিনাজপুর জেলার কালিয়াগঞ্জ সরকারী নিম্নবুনিয়াদি বিদ্যালয়ের শিক্ষকের বিরুদ্ধে চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্রীদের মোবাইলে খারাপ ভিডিও দেখানো ও অশ্লীল আচারণ করার অভিযোগ।
জানা যায় কালিয়াগঞ্জের ধনকৈল গ্রাম পঞ্চায়েতের ডালিমগা নিম্ন বুনিয়াদি বিদ্যালয়ের শিক্ষক সুরজিৎ ঘোষ  চতুর্থ শ্রেনীর এক ছাত্রীকে মোবাইলে অশ্লীল ভিডিও দেখিয়া শ্লীলতাহানি চেষ্টা করেন। শুধু এক নয় একাধিক ছাত্রীদের দাবি শিক্ষক সুরজিৎ ঘোষ প্রায় ছাত্রী দের অশ্লীল ভিডিও দেখাতেন বলে অভিযোগ । এই বিষয়ে দীর্ঘ দিন পূর্বে ই স্কুলে কর্তৃপক্ষ কে অভিযোগ করা হয়েছিল বলে অভিভাবকদের অভিযোগ। অভিভাবক রা জানান এর আগে ওই শিক্ষক উত্তর দিনাজপুরের কালিয়াগঞ্জ মিলনমযি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষকতা করতেন।সেই সময় স্কুলের ছাত্রী দের সাথে অশ্লীল আচারণের দায়ে তাকে কালিযাগঞ্জের ধনকৈল গ্রাম পঞ্চায়েতের নিম্ন বুনিয়াদি স্কুলে পাঠানো হয়েছিল। তবেও আজ আবারো তিন বছর পর ঠিক একই অভিযোগ উঠলো শিক্ষক সুরজিত ঘোষের বিরুদ্ধে ।

কিন্তু তবুও স্কুল কর্তিপক্ষ কোনো সুরাহা করেননি। জানা যায় কিছু দিন আগেই চতুর্থ শ্রেনীর ছাত্রী টি তার বাড়ির অভিভাবকে  শিক্ষকের এই ধরনের অশ্লীল আচারনের কথা জানায়  । মাঝে দুই দিন স্কুল বন্ধ থাকায় কোন সুরাহা হয়নি। মঙ্গলবার ফির স্কুল খোলার পরে অভিভাবকরা স্কুলে ক্ষোভে ফেটে পড়ে এবং স্কুলে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করে অভিযুক্ত শিক্ষকের শাস্তির দাবিতে। ঘটনার খবর পেয়ে ছুটে আসে ২ নং চক্রের অবর বিদ্যালয় পরিদর্শক  প্রান্তিক চক্রবর্তী। তিনি ঘটনার সত্যতা শিকার করে জানান শিক্ষকের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ খতিয়ে দেখে অভিযুক্ত শিক্ষকের শাস্তি ব্যবস্থা করা হবে আশ্বাস দেন । এবং বিষয়টি তার উর্ধতন কর্তিপক্ষকে জানানো হবে। 

বিদ্যালয় পরিদর্শক প্রান্তিক চক্রবর্তীর বিদ্যালয় পরিদর্শনে আসেন এবং শিক্ষক সুরজিত ঘোষ এর ওপর অভিভাবক দের অভিযোগের ভিত্তি তে জামিন অযোগ্য ধারায় মামলা রুজু করা হয় ।তার বিরুদ্ধে পোক্স আইন সহ একাধিক ধারায় মামলা দায়ের করা হয়েছে বলেও জানান।

তবে অপরদিকে অভিযুক্ত শিক্ষক সুরজিৎ ঘোষ তার বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ অস্বীকার করেছেন।

Check Also

নদিয়ার দেবগ্রামে আয়োজিত হল কালীগঞ্জ কৃষক বাজার গ্রামীন হাট ও কৃষি মেলার

সমীরণ ভট্টাচার্য, কালীগঞ্জ: নদিয়ার দেবগ্রামে কালীগঞ্জ কৃষক বাজার গ্রামীন হাট ও কৃষি মেলার আয়োজন করা …

Leave a Reply

Your email address will not be published.